DBC News
আদালতে গ্রেনেড হামলা মামলার আসামিরা, কঠোর নিরাপত্তা

আদালতে গ্রেনেড হামলা মামলার আসামিরা, কঠোর নিরাপত্তা

গাজীপুরের কাশিমপুর কারাগার থেকে ২১শে আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার আসামিদের বিশেষ আদালতে হাজির করা হয়েছে। কিছুক্ষণের মধ্যে এই মামলায় রায় দেবেন আদালত। 

পুরান ঢাকার নাজিমুদ্দিন রোডের পরিত্যক্ত কেন্দ্রীয় কারাগারের সামনে অস্থায়ী বিশেষ আদালতে বহুল আলোচিত এ মামলার বিচারকাজ চলেছে। আজ বুধবার ঢাকার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারক শাহেদ নূর উদ্দিন এ মামলার রায় ঘোষণা করবেন।

সকাল পোনে ৭ টার দিকে কাশিমপুর ১, ২ ও হাই সিকিউরিটি কারাগার থেকে গ্রেনেড হামলা মামলার অন্যতম আসামি সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী লুৎফুজ্জামান বাবর ও বিএনপি নেতা আব্দুস সালাম পিন্টুসহ অন্যান্য আসামিদের কড়া নিরাপত্তায় ঢাকায় পাঠানো হয় বলে জানায় কারা কর্তৃপক্ষ।  

এদিকে, আদালত প্রাঙ্গণসহ রাজধানী জুড়ে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। ডিএমপি কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া বলেছেন, '২১শে আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায়কে ঘিরে রাজধানীজুড়ে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। রায়কে কেন্দ্র করে অরাজকতার চেষ্টা করা হলে, জনগণের নিরাপত্তার স্বার্থে কাউকে ছাড় দেয়া হবে না, জনগণকে নিরাপত্তা দিতে আমাদের যথেষ্ট সক্ষমতা রয়েছে। কেউ নাশকতা চালানোর চেষ্টা করলে তাদের কঠোরভাবে দমন করা হবে এবং আইনের আওতায় আনা হবে।' 

অন্যদিকে, এই রায়কে কেন্দ্র করে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে দলীয় কার্যালয়ের সামনে জড়ো হয়েছেন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। ১৪ বছর আগের ওই হামলায় আহতদের অনেকেই সেখানে হাজির হয়েছেন। এ হামলায় জড়িতদের সর্বোচ্চ সাজা দাবি করেছেন তারা। পাশাপাশি নাশকতা ঠেকাতে সজাগ রয়েছেন দলীয় নেতাকর্মীরা। একইসঙ্গে আদালত এলাকায় মিছিল করেছেন স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। এসময় সাবেক সংসদ সদস্য মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন জানান, ন্যায় বিচারের আশা করছেন তারা।

প্রসঙ্গত, ২০০৪ সালের ২১শে আগস্ট, মুফতি হান্নানের নেতৃত্বে ১২ জন জঙ্গি আওয়ামী লীগের সমাবেশে হামলা করে। এই হামলার জন্য ৫২ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দেয় সিআইডি। যাদের মধ্যে অন্য মামলায় তিন আসামির ফাসি কার্যকর হয়েছে। বাকী ৪৯ জনের মধ্যে ১৮ জনই পলাতক, অন্যরা সবাই কারাগারে আটক। পলাতক আসামিদের মধ্যে আছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান।

আসামিদের মধ্যে বর্তমানে কারাগারে আছেন সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী লুৎফুজ্জামান বাবর, ডিজিএফআই-এর সাবেক মহাপরিচালক রেজ্জাকুল হায়দার, এনএসআই-এর সাবেক মহাপরিচালক আবদুর রহিম, সাবেক উপমন্ত্রী আবদুস সালাম পিন্টুসহ ৩১ আসামি।

আরও পড়ুন

জঙ্গি সন্দেহে মালয়েশিয়ায় এক বাংলাদেশিসহ ছয়জন আটক

জঙ্গি সংগঠনের সঙ্গে জড়িত সন্দেহে মালয়েশিয়ায় এক বাংলাদেশিসহ ছয়জনকে আটক করেছে মালয়েশিয়ার পুলিশ। শুক্রবার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন দেশটির পুলিশ মহাপরিদর্শক মোহাম্মদ ফ...

ইডেন কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ হত্যার ঘটনায় ৩ জন গ্রেপ্তার

রাজধানীর ইডেন কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ মাহফুজা চৌধুরী হত্যার ঘটনায় তিনজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গ্রেপ্তারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন, নিউ মার্কেট থানার ভারপ্রাপ্ত কর...

মহাসড়কের বিপজ্জনক খুঁটি দ্রুত সরাতে হাইকোর্টের নির্দেশ

সারা দেশের সড়ক ও মহাসড়কে থাকা বিপজ্জনক খুঁটি দ্রুত সরানোর নির্দেশ দিয়েছেন, হাইকোর্ট। বিপজ্জনক অবস্থানে থাকা সব ধরনের খুঁটি আগামী ৬০ দিনের মধ্যেই অপসারণের ন...

নির্বাচনি ট্রাইব্যুনালে বিএনপি'র আরও ৫ মামলা

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ভোট কারচুপির অভিযোগে ও নির্বাচিত প্রার্থীর বিজয় চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে মামলা করেছেন বিএনপির ৭২ প্রার্থী। ৩০শে ডিসেম্বরের নির্বাচনকে...