DBC News
ন্যাশনাল ক্রিকেট লিগ

ন্যাশনাল ক্রিকেট লিগ

বৃষ্টিময় ম্যাড়ম্যাড়ে দিনটায় সূর্যের হাসি লিটনের ব্যাটে। লিটন দাসের রেকর্ড গড়া দ্রুততম ডাবল সেঞ্চুরিতে টায়ার ওয়ানের ম্যাচে রাজশাহীর সঙ্গে ভাল টক্কর দিচ্ছে রংপুর। ৩য় দিন শেষে রাজশাহীর চাইতে ১১৯ রানে পিছিয়ে লিটনরা। একই পর্যায়ের আরেক ম্যাচে বরিশালের বিপক্ষে ৫০ রানের লিডে তৃতীয় দিন শেষ করেছে খুলনা। টায়ার টুতে ঢাকা মেট্রোর বিপক্ষে ১৩১ রানে পিছিয়ে দিন শেষ করেছে ঢাকা বিভাগ। 

এশিয়া কাপের ফাইনালের সেঞ্চুরিয়ান লিটন দাস। ওর বিতর্কিত আউটে ক্ষুব্ধ গোটা জাতি। সেঞ্চুরির স্মৃতিটা টাটকা থাকতে আবারো হাসলো তার ব্যাট। রাজশাহীতে গড়লেন অনণ্য এক রেকর্ড। দেশের প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে সবচেয়ে ফাস্ট ডাবল সেঞ্চুরির রেকর্ড এখন লিটনের দখলে।

প্রথম ইনিংসে ১৫১ রানে অলআউট হয়েছিল রংপুর। কিন্তু ২য় ইনিংসে খোলস ছেড়ে বের হয়েছে ওদের ব্যাটসম্যানরা। ১৪২ বলে ২০৩ রানের ঝড়ো ইনিংস খেলেন লিটন। তার সঙ্গে তাল মিলিয়েছেন মাহমুদুল হাসানও। দিন শেষে ওর সংগ্রহ হার না মানা ৭২। আর দলের ২ উইকেটে ৩১৯ রান। 

টায়ার ওয়ানের এ ম্যাচে রংপুরের বিপক্ষে ১ম ইনিংসেই তিন শতক স্বাগতিকদের। শান্তর ১৭৩, মিজানুরের ১৬৫ রানের পর ৩য় দিনও এসেছে সেঞ্চুরি। ৪ উইকেটে ৫৮৯ রানে ইনিংস ঘোষণার আগে ১০০ তুলে অপরাজিত ছিলেন জুনায়েদ সিদ্দিকি।

খুলনায় টায়ার ওয়ানের আরেক ম্যাচে প্রথম ইনিংসে বরিশালের করা ২৯৯ রানের জবাবে স্বাগতিকদের আগের দিনের ৬ উইকেটে ১৯৯ রানের ইনিংস ৭ উইকেটে ৩৪৯ হতেই শুরু হয় বৃষ্টি। পরে আর মাঠে গড়ায়নি খেলা। সেঞ্চুরি করে ১১২ রানে আউট হয়েছেন খুলনার জিয়া।

ফতুল্লায় টায়ার টুয়ের ম্যাচে ঢাকা বিভাগের বিপক্ষে প্রথম ইনিংসে ৩৮৭ রানে অল আউট ঢাকা মেট্রো। দুর্দান্ত ব্যাট করে ১৮৯ রানে আউট হন ওপেনার সাদমান ইসলাম। দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে ঢাকা বিভাগ ২ উইকেটে ৫০ রান তুলতেই শুরু হয় বৃষ্টি।

কক্সবাজারে টায়ার টুয়ের আরেক ম্যাচের দ্বিতীয় দিনের মতো তৃতীয় দিনও পুরোটা ভেসে গেছে বৃষ্টিতে। সিলেটের বিপক্ষে প্রথম ইনিংসে ৯ উইকেটে ২৮২ রান তুলে প্রথম দিন শেষ করেছিল চট্টগ্রাম।