DBC News
উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ ষোলোতে বার্সা

উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ ষোলোতে বার্সা

গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়েই শেষ ষোলোতে উঠেছে বার্সেলোনা। স্প্যানিশ জায়ান্টরা পিএসভিকে হারিয়েছে ২-১ ব্যবধানে। লিভারপুলের কাছে প্রথম লেগে হারার প্রতিশোধ নিয়েছে পিএসজি। ঘরের মাঠে রেডদের হারিয়েছে ২-১ গোলের ব্যবধানে। এছাড়া মোনাকোকে ২-০ গোলে হারিয়ে নকআউট পর্বে নিশ্চিত করেছে আরেক স্প্যানিশ জায়ান্ট আতলেতিকো মাদ্রিদ।  

নক আউট পর্ব নিশ্চিত হয়ে ছিল আগেই। বার্সার জন্য লড়াইটা গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার।

পিএসভির মাঠে প্রথমার্ধ কেবল আক্রমন পাল্টা আক্রমনের খেলা। মেসি ভিদালদের পায়ে বল বেশি থাকলেও ঘরের মাঠে প্রতিপক্ষের গোল মুখে একের পর এক আক্রমনও ছিল স্বাগতিকদের।

গোলশূন্য প্রথমার্ধের ডেড লক ভাঙে ম্যাচের ৬১ মিনিটে। দেম্বেলের সাথে দারুন বোঝা পড়ায় বা পায়ের জাদু দেখান লিওনেল মেসি। গুছিয়ে ওঠা বার্সা লিড বাড়াতে সময় নেয়নি। ম্যাচের ৭০ মিনিটে মেসির ফ্রি কিকে জেরার্ড পিকের ছোয়ায় আবারো এগিয়ে যায় কাতালানরা

পিছিয়ে পাড়া পিএসভি ম্যাচের ফেরার ইংগিত দেয় এক গোল শোধ দিয়ে। ৮২ মিনিটে গোল করেন পিএসভির  নেদারল্যান্ডস ফরোয়ার্ড  ডি ইয়ং। তবে শেষ পর্যন্ত আর কোন গোল না হলে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়েই নক আউট নিশ্চিত করে বার্সেলোনা।

এ গ্রুপের আরেক ম্যাচে মোনাকোকে ২-০ গোলে হারিয়ে নকআউট পর্বে উঠেছে আতলেতিকো মাদ্রিদ। ক্লাব ব্রুজের সঙ্গে গোলশূন্য ড্র করা বরুসিয়া ডর্টমুন্ডও  নিশ্চিত করেছে শেষ ষোলো।  জয় পেয়েছে টটেনহ্যাম হটস্পার ও ঘরের মাঠে  ইন্টারকে হারিয়েছে  ১-০ ব্যবধানে।

এদিকে ঘরের মাঠে পিএসজির জন্য ম্যাচটা ছিল ডু অর ডাই। লিভারপুলের বিপক্ষে হারলে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ লড়াই থেকে ছিটকে পড়তে পারে নেইমার এমব্বাপেরা।

কঠিন হিসেবে দাঁড়িয়ে ম্যাচের শুরু থেকে আক্রমনাক্ত স্বাগতকরা। সাফ্যল আসতেও সময় নেয়নি। ম্যাচের ১৩ মিনিটে বের্নাতের গোলে লিড নেয় পিএসজি।

আত্নবিশ্বাসি পিএসজির লিড ডাবল করেন দলের সেরা তারকা নেইমার। ম্যাচের ৩৭ মিনিটে দুদান্ত শটে বোকা বানান লিভারপুল গোলরক্ষককে।

প্রথমার্ধের শেষ সময়ে গোল শোধের সুযোগ পায় লিভারপুল। ডি-বক্সের ভেতর দি মারিয়া ফাউলে পেনাল্টি পায় রেডরা। ঠান্ডা মাথায় গোল করেন জেমস মিলনার।

দ্বিতীয়ার্ধে দু দলের একাধিক চেষ্টায় আর গোল না আসলে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে পিএজি।