DBC News
উইন্ডিজের ব্যাটিং ধ্বস

উইন্ডিজের ব্যাটিং ধ্বস

একেবারে চালকের আসনে বাংলাদেশ। ইনিংস হার এড়ানোর কঠিন চ্যালেঞ্জ এখন উইন্ডিজের সামনে।  প্রথম ইনিংসে টাইগারদের করা ৫০৮ রানের জবাবে ওদের সংগ্রহ  ৫ উইকেটে ৭৫ । দ্বিতীয় দিন শেষে বাংলাদেশের চেয়ে  পিছিয়ে ৪৩৩ রানে। 

স্কোরবোর্ডে ৫ উইকেটে ২৫৯ নিয়ে দিনের শুরু। ক্রিজে সাকিব-মাহামুদউল্লাহ জুটির দাপট। টাইগারদের দলীয় ৩০১ রানে সাকিবকে আউট করে সেই জুটিটা ভাঙলেন কেমার রোচ। শেষ হয় ১১১ রানের যাত্রা। সাদা পোশাকে নিজের ৬ নম্বর সেঞ্চুরিটা ক্যাপ্টেনের হলো না, মোটে ২০ রানের জন্য।

সাকিব ফিরলেও লড়ে গেলেন মাহামুদউল্লাহ। লিটনের সঙ্গে ৯২ রানের জুটি। এক প্রান্তে মাহামুদউল্লাহ ধীরস্থির থাকলেও দ্রুত রান উঠেছে লিটনের ব্যাটে। চার নম্বর টেস্ট ফিফটি তুলে ৫৪ রানে ফেরেন লিটন।

এরপর তিন নম্বর সেঞ্চুরিটা তুলেও থামেননি মাহামুদউল্লাহ। তাইজুলের সাথে গড়েছেন ৫৬ রানের জুটি। তাইজুল ২৬-এ ফিরলে সেঞ্চুরিয়ানকে সঙ্গ দেন নাঈম হাসান। টাইগারদের শেষ জুটিতেও ৩৬। দলীয় ৫০৮ রানে অবশেষে হার মানেন মাহামুদউল্লাহ। ১৩৬ রানে ওয়ারিকেনের কাছে তার আত্মসমর্পন দিয়ে শেষ হয় টাইগারদের প্রথম ইনিংস।     

দিনের শেষ ভাগে ব্যাট করতে নেমেই বিপাকে উইন্ডিজ। সাকিব আর মিরাজ মিলে যেন একটা দুঃস্বপ্নের বিকেল উপহার দিলেন ক্যারিবিয়ানদের। দলীয় ২৯ রানেই ৫ উইকেট নেই ক্যারিবিয়ানদের। সাকিব ফিরিয়েছেন ব্রাথওয়েট আর আম্ব্রিসকে। মিরাজের শিকার কাইরন পাওয়েল, শাই হোপ আর রোস্টন চেজ।

শেষ দিকে প্রতিরোধ গড়ার চেষ্টা করেছে ডরউইচ-হেটমেয়ার জুটি। ৪৬ রানে দিন শেষ করতে পেরেছেন দুজন। হেটমেয়ার অপরাজিত ৩২, আর ডরউইচ নট-আউট ১৭ রানে।

ঢাকা টেস্টে জয়ের মাধ্যমে উইন্ডিজকে হোয়াইট-ওয়াশ করার টার্গেট নিয়েই খেলছে বাংলাদেশ। তবে উইকেট নিয়ে না ভেবে নিজেদের সেরাটা দিয়ে লড়তে চায় টাইগাররা।