DBC News
সংসদে সরকারি জোটেই থাকবে ১৪ দলের শরিকরা

সংসদে সরকারি জোটেই থাকবে ১৪ দলের শরিকরা

বিরোধী জোটে নয়, ১৪ দলের শরিক হিসেবেই সংসদে থাকবে জাসদ ও ওয়ার্কার্স পার্টির মতো দলগুলো। তবে, সংসদ প্রাণবন্ত করতে সংবিধানের ৭০ অনুচ্ছেদে পরিবর্তন আনার পক্ষে কাজ করতে চান তারা। আর মন্ত্রীত্ব না পাওয়ায় কোনো ক্ষোভ নেই বলে দাবি দলগুলোর শীর্ষ নেতাদের।

একাদশ সংসদে বিরোধীদল জাতীয় পার্টির আসন সংখ্যা ২২টি। সংসদকে শক্তিশালী করতে জাতীয় পার্টির প্রত্যাশা রয়েছে আওয়ামী লীগের বাইরে নির্বাচিত সংসদ সদস্যরা বিরোধী জোটে আসবেন। তবে চৌদ্দ দলের অন্যতম শরীক জাসদ ও ওয়ার্কার্স পার্টির শীর্ষ নেতারা বলছেন, তারা সরকারি জোটেই থাকবেন।

সংসদে কোন পক্ষে থাকবে এ বিষয়ে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের সভাপতি হাসানুল হক ইনু বলেন, 'আমরা জোটের সিদ্ধান্তের ভিত্তিতেই থাকবো। এই মুহূর্তে আমরা জোটে আছি তার ভিত্তিতেই দেশ পরিচালনায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে অকুন্ঠ সমর্থন দেব।'

অন্যদিকে বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশা বলেন, '১৪ দলের ঐক্যকে সক্রিয় রাখা উচিত। অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ গড়ার যে সংগ্রাম তা শেষ হয়েছে এটা মনে করার কোনো কারণ নেই। পাশাপাশি মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাংলার মানুষের ঘরে ঘরে পৌঁছে গেছে এমন ভাবারও কোনো কারণ নেই।'

তবে, সরকারি জোটে থাকলেও সংসদকে প্রাণবন্ত করতে সংবিধানের ৭০ অনুচ্ছেদ সংশোধনের প্রত্যাশা রয়েছে তাদের।

এ বিষয়ে, বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশা বলেন, 'সরকারের প্রতি অনাস্থা এবং বাজেট পাস করার ক্ষেত্রে সরকারকে আমাদের সহায়তা করতে হবে। এই দু'টি বিষয় ছাড়া অনেক বিষয়ে আমরা সরকারের কোনো প্রস্তাবিত আইন বা প্রস্তাবের বিরুদ্ধে মত দিতে পারব এই বিধানটা থাকা উচিত। তাহলে সংসদ সদস্যরা ভেবেচিন্তে অবদান রাখতে পারবেন।'

আর মন্ত্রীসভায় থাকা না থাকা নিয়ে বিতর্ক অহেতুক বলেও মন্তব্য দুই দলের এ দুই শীর্ষ নেতার। এ সম্পর্কে ইনু বলেন, মন্ত্রিসভা গঠনের দায়িত্ব মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার। সুতরাং তিনি যেসব বিবেচনায় সিদ্ধান্ত নিয়েছেন, সেসব বিবেচনার প্রতি আমার সমর্থন আছে।'

বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক জানান, 'আমরা একসঙ্গে আন্দোলন করব, একসঙ্গে নির্বাচন করব এবং একসাথেই সরকার গঠন করব। এইগুলো সব বোঝাপড়ার বিষয়। এই খানে কেউ কারও ওপর শর্ত আরোপ করতে পারেনা। অতএব এটা নিয়ে বিতর্ক করার কিছু নেই।

বর্তমানে একাদশ সংসদে এই দুই দলের সদস্য সংখ্যা ৫ জন।

আরও পড়ুন

তৃতীয় লিঙ্গের মানুষের জন্য পাঠাগার

তৃতীয় লিঙ্গের মানুষ।  সমাজে আর সবার মতো মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়ে থাকার যুদ্ধে যারা আজও পিছিয়ে। পাঠাগারে গিয়ে জ্ঞানের আলোয় আলোকিত হতে এ পিছিয়ে পড়া গোষ্ঠীকে সাহ...

আ.লীগের অভিযুক্তরা পাচ্ছেন শোকজ নোটিশ

উপজেলা নির্বাচনে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী, তাদের মদদদাতা এবং সহায়তাকারীদের কারণ দর্শানো হচ্ছে। এরই মধ্যে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অন্তত ৭০ জনের বিরুদ্ধে আ...

আ.লীগের অভিযুক্তরা পাচ্ছেন শোকজ নোটিশ

উপজেলা নির্বাচনে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী, তাদের মদদদাতা এবং সহায়তাকারীদের কারণ দর্শানো হচ্ছে। এরই মধ্যে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অন্তত ৭০ জনের বিরুদ্ধে আ...

'বন্যা মোকাবেলায় সরকারের পদক্ষেপ নাই'

বন্যা মোকাবেলায় সরকারের দৃশ্যমান কোনো পদক্ষেপ নেই বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। গুলশানে চেয়ারপার্সনের কার্যালয়ে বিএনপির স্থায়ী ক...