DBC News
বাংলাদেশের সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি প্রশংসার যোগ্য: মার্কিন রাষ্ট্রদূত

বাংলাদেশের সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি প্রশংসার যোগ্য: মার্কিন রাষ্ট্রদূত

বাংলাদেশের সাম্প্রদায়িক পরিস্থিতি নিয়ে সম্প্রতি মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছে বাংলাদেশি নারী প্রিয়া সাহা যে তথ্য উপস্থাপন করেছেন তা সঠিক নয় বলে মনে করেন ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত রবার্ট মিলার। 

শুক্রবার বিকেলে রাজধানীর মেরুল বাড্ডায় বৌদ্ধ বিহার পরিদর্শনে গিয়ে বাংলাদেশের বিভিন্ন স্থান ঘুরে বেড়ানোর কথা জানিয়ে সাংবাদিকদের মিলার বলেন, 'বাংলাদেশের সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি প্রশংসা পাওয়ার যোগ্য।'

সম্প্রতি চীন, তুরস্ক, উত্তর কোরিয়া, মিয়ানমারসহ ১৬টি দেশে সাম্প্রদায়িক নিপীড়নের শিকার হওয়া মানুষদের কয়েকজনকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল হোয়াইট হাউসে। গত ১৬ জুলাই মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে দেখা করেন তারা। ট্রাম্প যখন একে একে সবার বক্তব্য শুনছিলেন তখন বাংলাদেশি পরিচয় দিয়ে প্রিয়া সাহা জানান, বাংলাদেশে হিন্দু,বৌদ্ধ ও খ্রীস্টানরা নিখোঁজ  হয়ে যাচ্ছে। তাদের রক্ষা করতে এবং বাংলাদেশে তারা থাকতে চায় বলে মার্কিন প্রেসিডেন্টের সহযোগিতা চান তিনি। এদিকে, প্রিয়া সাহার ওই বক্তব্যের সমালোচনা করেছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল ও পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম। 

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, 'বাংলাদেশে সংখ্যালঘুদের নিয়ে এমন কোনো পরিস্থিতি তৈরি হয়নি। এটা একটা চক্রান্ত হতে পারে।'

এই ঘটনার নিন্দা জানিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট দিয়েছেন পররাষ্ট্র প্রতিমমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম। এই ঘটনা কেন ঘটলো তা খতিয়ে দেখা হবে বলেও জানান তিনি।