• সোমবার, ১৬ মে ২০২২
  • রাত ১০:৩৬

মানিকগঞ্জে গৃহবধূ হত্যায় যুবকের যাবজ্জীবন

মানিকগঞ্জে গৃহবধূ হত্যায় যুবকের যাবজ্জীবন
মানিকগঞ্জের শিবালয়ে পরকীয়ার জেরে এক গৃহবধূকে শ্বাসরোধ করে হত্যার দায়ে রেজাউল মন্ডল (২৮) নামে এক যুবককে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

বৃহস্পতিবার বেলা ২টার দিকে মানিকগঞ্জ অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক উৎপল ভট্টাচার্য আসামির অনুপস্থিতিতে এই রায় ঘোষণা করেন।

যাবজ্জীবনপ্রাপ্ত রেজাউল জেলার শিবালয় উপজেলার নিহালপুর গ্রামের মৃত সামসুল মন্ডলের ছেলে। সে পেশায় একজন চা বিক্রেতা ছিলো। আর নিহত সালেহা বেগম (৩৫) একই গ্রামের সিরাজুল ইসলামের স্ত্রী।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, আসামি রেজাউলের সঙ্গে সিরাজুল ইসলামের স্ত্রী সালেহার পরকীয়ার সর্ম্পক ছিল। সালেহার স্বামীও আরিচাঘাটে চায়ের দোকানে কাজ করতো। ২০১১ সালের ১লা অক্টোবর রাত সাড়ে ১২টায় সালেহা বাড়ি থেকে বের হয়ে নিঁখোজ হয়। পরদিন ভোরে আরিচাস্থ আবহাওয়া অফিসের পেছন থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। এঘটনায় সালেহার ভাই ইসমাইল হোসেন বাদী হয়ে রেজাউল ও অজ্ঞাত কয়েকজনকে আসামি করে শিবালয় থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। পুলিশ ঘটনার পরদিনই রেজাউলকে গ্রেপ্তার করে আদালতে প্রেরণ করে।

পরে রেজাউল ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করেন। ২০১২ সালের ২৮শে ফেব্রুয়ারি পুলিশ আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে। মামলায় মোট ১৬ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে আদালত রেজাউলকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে দুই মাসের কারাদণ্ড প্রদান করেন। আসামি রেজাউল জামিন নিয়ে পলাতক আছে।

ডেস্ক
মানিকগঞ্জ প্রতিনিধি
ডিবিসি নিউজ
প্রকাশিতঃ ২৭শে জানুয়ারী, ২০২২


সর্বশেষ

ঘটনাপ্রবাহ বিশ্লেষণঃ

আরও পড়ুন