• বুধবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১
  • রাত ৮:১০

মাল্টার কারাগারে দীর্ঘ ১৮ মাস ধরে বন্দি ১৬৫ বাংলাদেশি

অবৈধভাবে সমুদ্রপথে মাল্টায় যাওয়া ১শ ৬৫ বাংলাদেশি দীর্ঘ ১৮ মাস ধরে বন্দি দেশটির কারাগারে। তাদের মুক্ত করতে সরকারের উচ্চ পর্যায়ের কর্মকর্তাদের সাথে বৈঠক করেছেন অল ইউরোপিয়ান বাংলাদেশ এসোসিয়েশন-আয়েবার নেতারা।

মানবিক কারণে তাদের মুক্তি দেয়ার আহবান জানানোর পাশাপাশি এ নিয়ে তৎপরতা অব্যাহত রাখার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন সংগঠনটির নেতারা।

ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে প্রতিদিনই ইউরোপে প্রবেশের চেষ্টা চালায় অভিবাসন প্রত্যাশীরা। কিন্তু অবৈধপথে প্রবেশ করায় তাদের বিভিন্ন দেশ গ্রহণ তো করেই না বরং শেষ পর্যন্ত তাদের জায়গা হয় কারাগারে। দ্বীপ রাষ্ট্র মাল্টায় আটক ১৬৫ জন বাংলাদেশির ক্ষেত্রেও এমনটাই ঘটেছে। দীর্ঘ ১৮ মাস ধরে কারাগারে বন্দি তারা।

এ অবস্থায় তাদের মুক্ত করতে এগিয়ে এসেছে অল ইউরোপিয়ান বাংলাদেশ এসোসিয়েশন-আয়েবা। সংগঠনের মহাসচিব কাজী এনায়েত উল্লাহর নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দল মাল্টা যান। দেশটির স্বরাষ্ট্র সচিবসহ উচ্চ পর্যায়ের একটি প্রতিনিধি দলের সঙ্গে বৈঠক করেন তারা।

মাল্টা সরকারের পক্ষ থেকে বৈঠকে অংশ নেন দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের স্থায়ী সচিব কেভিন মাহোনে, নিরাপত্তা এবং আইন প্রয়োগ সংস্থার কর্মকর্তা রায়ান এসপানিয়ল, ডিটেনশন সেন্টারের মহাপরিচালক রবার্ট ব্রিংকাউ। বৈঠক ফলপ্রসূ হয়েছে বলে এক সংবাদ সম্মেলনে জানান আয়েবা মহাসচিব কাজী এনায়েত উল্লাহ।

আয়েবা মহাসচিব কাজী এনায়েত উল্লাহ বলেন,'সবার সহযোগীতা প্রয়োজন। এই প্রবাসীদের ব্যাপারে সবার দায়িত্ব আছে। তাদের জন্য আমরা কাজ করবো। আপনারাওসঙ্গে থাকবেন।'

মানবিক কারণে আটক বাংলাদেশীদের মুক্তির দাবি জানান সংগঠনের নেতারা। আয়েবা নেতা আ ক ম সেলিম বলেন,'আমরা অথোরিটিকে বলেছি। আশাকরছি আগামীতে একটি সুইটেবল জায়গাতে কাজ করতে পারবো।'

আয়েবা নেতা আহমেদ ফিরোজ বলেন,'বাংলাদেশি যে ১৬৫ জন চরম মানবেতন জীবন যাপন করছে তাদের ব্যাপারে আইনজীবি নিয়োগ দেয়া হয়েছে। তিনি তাদের বিষয়ে কাজ করছেন।'

ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের আইনের মধ্য দিয়েই তাদের মুক্তি সম্ভব বলে মনে করেন আয়েবা নিযুক্ত আইনজীবী এতিয়েন কালেয়া।

আটক বাংলাদেশিদের মুক্ত করতে যোগাযোগ অব্যাহত রাখার এবং প্রয়োজনে আবারও মাল্টায় যাওয়ার প্রতিশ্রুতি দেন সংগঠনের কর্মকর্তারা।

ডেস্ক
ডিবিসি নিউজ
প্রকাশিতঃ ২৬শে জুলাই, ২০২১


সর্বশেষ

আরও পড়ুন